1. [email protected] : Admin :
সিঙ্গাপুরবাসীকে চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে নামিয়ে দেয় এক নিঃস্ব পরিবার বাংলা এক্সপ্রেস | বাংলা এক্সপ্রেস - Welcome
বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:১১ পূর্বাহ্ন

সিঙ্গাপুরবাসীকে চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে নামিয়ে দেয় এক নিঃস্ব পরিবার বাংলা এক্সপ্রেস | বাংলা এক্সপ্রেস

  • টাইম আপডেট : বুধবার, ১৮ মে, ২০২২
  • ১৬৪ কত বার দেখা হয়েছে

পরিবার নিয়ে একটু ভালো থাকার স্বপ্ন নিয়ে বিদেশ যেতে চেয়েছিলেন লক্ষ্মীপুরের কমলনগরের বাসিন্দা ৩০ বছর বয়সী এক যুবক। জুয়েল। দরিদ্র বাবার অর্থনৈতিক চাকা ঘোরাতে পরিবারটি তাদের চাচাতো ভাইয়ের উপর নির্ভর করে। তাই তারা জুয়েলকে লোনে সিঙ্গাপুর পাঠায়। তবে সিঙ্গাপুরে নয়, শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে তাকে চট্টগ্রামে নামিয়ে দেন তার নিকটাত্মীয়রা।

প্রতারিত হয়ে অবশেষে লক্ষ্মীপুর আদালতের দ্বারস্থ হয় পরিবার। বিচারক মামলাটি আমলে নিয়ে পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দেন। পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার পর থেকে দলটি আত্মগোপনে থাকায় তারা এখনও পলাতক। এদিকে এই চক্রের বিরুদ্ধে অন্যদের সঙ্গে প্রতারণার মাধ্যমে লাখ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ রয়েছে।

নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, জুয়েলের মো. কোনো কোনো সূত্রে জানা গেছে, পরিবারের ৯ জন সদস্য তাদের বাবার সঙ্গে মাছ ধরে জীবিকা নির্বাহ করতেন। কিন্তু তাদের টার্গেট করে তার চাচা ভোলা জেলার বাসিন্দা আলেয়া বেগম এবং তার চাচাতো ভাই সিঙ্গাপুরে বসবাসকারী আওলাদ হোসেন। এ উদ্দেশ্যে তারা তার ভাইয়ের বাড়িতে বেড়াতে আসেন।

তিনি জুয়েলকে সিঙ্গাপুরে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তাব দেন। এ সময় জুয়েলের পরিবার ১২ লাখ টাকার প্রস্তাবে ৫ লাখ টাকা দিতে রাজি হয়। পরে একটি এনজিও ও তার স্বজনদের কাছ থেকে ধার করে টাকা সংগ্রহ করে তাদের হাতে তুলে দেন। গত ২৮ এপ্রিল সিঙ্গাপুরের ফ্লাইটে জুয়েলকে ঢাকায় আনা হয়। পরে শাহজাহাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তার চাচাতো ভাইয়ের সাথে দেখা হলে তার চাচাতো ভাই তাকে চট্টগ্রামে নিয়ে যায়। এরপর তাকে একটি হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয় যেখানে তাকে আটক করা হয়, তার পরিবার তাকে বলতে বাধ্য করে যে সে সিঙ্গাপুরে পৌঁছেছে। একপর্যায়ে তাকে ঢাকায় ফিরিয়ে এনে তিনটি মোটরসাইকেলসহ সায়েদাবাদ বাস টার্মিনালে নামিয়ে দেওয়া হয় বলে জানান জুয়েল।

এদিকে প্রতারণার শিকার হয়ে দরিদ্র পরিবারটি এখন হারিয়ে গেছে। এ ঘটনার বিচার চেয়ে জুয়েলের বাবা শাহিজাল বাদী হয়ে গত ৯ মে লক্ষ্মীপুর জজ আদালতে প্রতারণার মামলা করেন।

মামলার আসামিরা হলেন- শাহেজাল মাঝির বোন আলেয়া বেগম, ভাগ্নে আওলাদ হোসেন, আওলাদের শ্যালক সানি, ভাগ্নির স্বামী শামীম, ভাগ্নের স্ত্রী আয়েশাসহ ছয়জন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন বলে জানা গেছে।

এ প্রসঙ্গে জুয়েলের বাবা শাহিজাল মাঝি ও তার মা গণমাধ্যমকে বলেন, ‘আমরা চাই সরকার আমাদের সঙ্গে যে প্রতারণা করেছে তার বিচার করুক। কেউ যেন এ ধরনের প্রতারণার ফাঁদে না পড়ে বলে দাবি জানান তারা।

এদিকে স্থানীয়রা জানায়, পাশের গ্রামের মনু মাঝি নামে আরেক ব্যক্তি প্রতারণার শিকার হয়েছে। প্রতারণার মাধ্যমে টাকা হাতিয়ে নেওয়াই এই চক্রের কাজ। তারা জানান, ঢাকায় তারা প্রায়ই ঠিকানা পরিবর্তন করেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে লক্ষ্মীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) পলাশ কান্তি নাথ বলেন, শুনেছি জুয়েল নামে এক যুবককে সিঙ্গাপুরে নিয়ে যাওয়ার জন্য চট্টগ্রামে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় আদালতে মামলা হয়েছে এবং বিষয়টি পিবিআই তদন্ত করেছে। পুলিশ এখনও কোনো অভিযোগ পায়নি (১৫ মে রাত ১১টা ৫০ মিনিট পর্যন্ত)। কোনো অভিযোগ পেলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান ওই পুলিশ কর্মকর্তা।

Source link

নিউজটি শেয়ার করুন সোশ্যাল মিডিয়াতে..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ধরণের আরো খবর জানতে..
© All Rights Reserved © 2022 www.dailyprobash.com
Bangla News DailyProbash.com